কলমে: শুভ্রা সাহা

দগ্ধ প্রেমের মায়াজালে আবদ্ধ আমি-
একটা স্তব্ধ দুপুর ধার চাই ,
পৃথিবীর গতি থেকে ;
দাঁড় কাক দূরে –
ছাদের কার্নিশের উপরে, ঘাড় কাত করে –
এদিক ওদিক তাকায় ;
হয়তো জলের সন্ধানে-
চাতক ও তাই –
অসময়ে কোকিলটি ডাক !
পাতাবাহারের গাছটি–
মুখ গোমরা করে –
তাকিয়ে তুলসী মঞ্চের দিকে ;
বড় বৃক্ষটি ছত্রধরে-
– তৃণলতা যত পদতলে –
জুঁই চেয়ে সকরুণ ভূতলে ;
দূর আকাশের তারারা সব-
মলিন বিবর্ণ হয়ে –
পিছন ফিরে পৃথিবী থেকে ।
ছাতি ফাঁটা তৃষিত হৃদয়-
দূরের পাষাণ পথে –
অবসাদে শূন্যে তাকায় ।
ধার চাই স্তব্ধ দুপুরটা – সম্পূর্ণভাবে –
উষ্ণতায় মিশে –ধরিত্রীকে –
কর-গত করতে চাই ।
উজার করা হৃদি হতে-
সব ক্রন্দন ঢেলে দিতে চাই –
নির্গত ধোঁয়া হতে চাই -মহা শূন্যতায় ;
ছুতে চাই অম্বর —
দুরের মেঘ -,মিশে যেতে চাই-
অসীম -অনন্তে, অরূপে- অতলে ;
জনম মরণ এক করে –
বিলীন হতে চাই ,মোহনায় ,
,আমি স্তব্ধ দুপুর ধার চাই !