ঘোষণা

গ্রীষ্মের ছুটিতেও ঘুরতে যাওয়ার পরিকল্পনা নেই জাপানিদের : সমীক্ষা

ওমর শাহ | শনিবার, ১৫ আগস্ট ২০২০ | পড়া হয়েছে 68 বার

গ্রীষ্মের ছুটিতেও ঘুরতে যাওয়ার পরিকল্পনা নেই জাপানিদের : সমীক্ষা

গ্রীষ্মের ছুটিতেও এবার বাইরে ঘুরতে যাওয়ার পরিকল্পনা নেই জাপানিদের মধ্যে। গত বছর যে হারে গ্রীস্মের ছুটিতে বাইরে বেরিয়ে ছিলেন এবার তার চেয়ে কম পরিকল্পনা করছেন তারা। জাপানের খেলনা সরবরাহকারী সংস্থা বোর্নলান্ড ইনকর্পোরেশনের এক জরিপে এমন তথ্য উঠে এসেছে।

বোর্নলান্ড ইনকর্পোরেশনের সাম্প্রতিক জরিপে দেখা গেছে, জাপানের প্রায় ৭৭ শতাংশ শিশু সন্তানের মায়েরা জানিয়েছেন যে তারা এবার গ্রীস্মের ছুটিতে ঘুরতে যাবেন না। এর কারণ হচ্ছে করোনা ভাইরাস মহামারী হ্রাস হওয়ার কোনও লক্ষণ দেখা যাচ্ছে না। নতুন করোনা ভাইরাসের যুগে পরিবারের পরিবর্তিত জীবনযাত্রার ইঙ্গিত দিয়ে জরিপটি চালায় বোর্নলান্ড ইনকর্পোরেশন। এর মধ্যে ৭৭.৩ শতাংশ পরিবার তাদের সন্তানদের সাথে বাইরে ঘুরতে যাওয়ার কথা বলেছেন। আর ৭৯.১ শতাংশ বলেছেন যে তারা তাদের ছুটিতে যাবেন না।

টোকিওভিত্তিক এ খেলনা সংস্থাটি বৌদ্ধিক শিক্ষার খেলনা আমদানি ও বিক্রয় করে থাকে। সামগ্রিক সমাজকে কীভাবে নতুন জীবনযাত্রায় শিশুদের খেলার ও বিকাশের সুযোগগুলো সুরক্ষিত করতে হবে তা নিয়ে চিন্তা করার কথা জানায় সংস্থাটি ।

এ বছর গ্রীস্মের ছুটিতে তারা কেন বাইরে যাওয়ার পরিকল্পনা করছেন না, এমন প্রশ্নের জবাবে ৭০.৪ শতাংশ জানিয়েছেন করোনা মহামারীর কারণে তারা যেসব জায়গা বা স্থান দেখতে চান তা বন্ধ রয়েছে বা প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে।

জরিপে আরও দেখা গেছে যে, ৬৫.৯ শতাংশ মানুষ যেখানে জমায়েত হবে সেখানে যেতে চান না এবং ৪২.৬ শতাংশ তাদের সন্তানদের গ্রীষ্মের অবকাশকালীন সময় কম বলে উল্লেখ করেছেন।

গত ৮ আগস্ট থেকে জাপানে (বন হলি ডে) গ্রীস্মের ছুটি শুরু হলেও স্কুলগুলোতে অন্য বছরের তুলনায় এ বছর গ্রীস্মের ছুটি কম থাকবে। কারণ জাপানের স্কুলগুলোতে নতুন বছরের ক্লাস শুরু হয় এপ্রিল থেকে। তবে ওই সময় থেকে করোনার কারণে স্কুল বন্ধ থাকার কারণে ক্লাস কম হয়েছে।

৩৫.১ শতাংশ প্রদেশের মানুষের বাইরে যাওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে আর পৌরসভার ২২.০ শতাংশ বলেছে যে তারা তাদের পৌরসভায় ভ্রমণ করবে। প্রদেশ ও নিজ শহরের বাইরে ভ্রমণ করার পরিকল্পনার কথার জানিয়েছেন মাত্র ৪.৯ শতাংশ মানুষ যা গত বছরের তুলনায় ৪৩.১ শতাংশ থেকে কম।

অনলাইন জরিপটি ৯ থেকে ১৩ জুলাইয়ের মধ্যে ৭৫৫ জন মায়ের জন্য পরিচালিত হয়েছিল। যাদের বয়স যারা ২০ থেকে ৪০ বছর। প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নিম্ন গ্রেডের কিন্ডারগার্টেনে শিশু রয়েছে এই মায়েদের।

তথ্যসূত্র: কায়োডো নিউজ

Facebook Comments

বাংলাদেশ সময়: ১:১৩ অপরাহ্ণ | শনিবার, ১৫ আগস্ট ২০২০

জাপানের প্রথম অনলাইন বাংলা পত্রিকা |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত