ঘোষণা

বিদেশিদের পুনরায় প্রবেশের অনুমতি দিল জাপান

ওমর শাহ | বৃহস্পতিবার, ২৩ জুলাই ২০২০ | পড়া হয়েছে 135 বার

বিদেশিদের পুনরায় প্রবেশের অনুমতি দিল জাপান

লকডাউনের আগে জাপান থেকে বাইরে যাওয়ার কারণে আটকে থাকা বিদেশি নাগরিকদের পুনরায় জাপানে প্রবেশ করার অনুমতি দিল জাপান। করোনার সর্বশেষ পরিস্থিতি নিয়ে সরকারি কর্মকর্তাদের সাথে ২২ জুলাই বৈঠক করেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে।

জাপানের বেশ কয়েকটি জাতীয় দৈনিকের ২৩ জুলাই (বৃহস্পতিবার) খবরে সরকারের এমন সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে সংবাদ প্রকাশ করেছে। এই সংবাদ প্রকাশের পরে বিশ্বের অন্যতম ধনী দেশটির বাইরে আটকে থাকা নাগরিকদের মনে দুশ্চিন্তা কমেছে।

করোনার কারণে রাজধানী টোকিও সহ দেশজুড়ে জরুরী অবস্থা জারি করায় বিভিন্ন দেশে আটকে যান জাপানে থাকা অনেক বিদেশি নাগরিক। তাদের মধ্যে অনেকে জাপানের বিভিন্ন শহরে চাকরি করেন, কেউ গবেষণা করেন, কেউ পড়াশোনা করেন।

সরকারি কর্মকর্তাদের সাথে বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে জানান, চীন, দক্ষিণ কোরিয়া ও তাইওয়ানসহ ১২ আশিয়ান দেশের নাগরিকরা নিরাপদে জাপানে প্রবেশ করতে পারবে। বিদেশি বাসিন্দাদের ধীরে ধীরে নির্দিষ্ট ভিসা দেওয়া হবে। আর যারা বাইরে আটকে আছে তারা পুনরায় দেশে প্রবেশ করতে পারবে।

আশিয়ান ১২ দেশের মধ্যে ব্রুনাই, কম্বোডিয়া, হংকং, লাওস, ম্যাকাও, মালয়েশিয়া ও সিঙ্গাপুরের নাগরিকদেরও জাপানে প্রবেশের ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা হয়েছে তবে সে ক্ষেত্রে করোনা প্রতিরোধে অতিরিক্ত সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে যার মধ্যে অন্যতম হলো পরীক্ষা।

এছাড়া নির্দিষ্ট নিয়ম অনুসরণ করলে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপের কিছু দেশের মতো অন্যান্য দেশ থেকে অল্প সংখ্যক ব্যবসায়ীকে অনুমতি দেওয়ার বিষয়ে বিবেচনা করছে জাপান সরকার। এ ক্ষেত্রে কেবলমাত্র বেসরকারী বিমানে করে এসে বিমানবন্দরে ৭২ ঘন্টা অবস্থান করার পরে শহরে প্রবেশ করতে পারবেন।

বর্তমানে ২ লাখ ৮ হাজার বিদেশি জাপানের বাইরে আটকে আছে। এর মধ্যে ৮৮ হাজার শিক্ষার্থী ও দক্ষ কর্মী রয়েছে। তারা ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার আগে বিভিন্ন কারণে জাপানের বাইরে ছিলেন। ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা কাযকরের পরে তারা জাপানে আসতে পারেননি। তাদের বেশি গুরুত্ব দেওয়া হবে বলে সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

তবে জাপান প্রবেশে এখনো ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা পুরোপুরি প্রত্যাহার করা হয়নি। যারা নতুন ভিসা পেয়েছেন বা যারা ভিসা পাওয়ার অনেক পরে জাপান প্রবেশ করবেন তাদেরও জাপানে প্রবেশের অনুমতি দেওয়া হবে বলে সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

জার্মানি ও ফ্রান্সের মতো ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা আরোপকারী আরও অনেক দেশ পুনরায় প্রবেশের অনুমতি দেওয়ার ক্ষেত্রে দেশি ও বিদেশী নাগরিকদের মধ্যে বৈষম্য রাখেনি।

জাপানে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার মধ্যে ১২৯ টি দেশ ও অঞ্চল রয়েছে। গত ১৭ জুলাই থেকে নতুন করে এ তালিকায় যুক্ত করা হয়েছে নেপাল ও কেনিয়াসহ আরো ১৭ টি অঞ্চলকে। বিদেশি ভ্রমণকারীদের মধ্যে যারা ১৪ দিনের মধ্যে এর যে কোনও একটিতে ভ্রমণ করেছেন তাদের ফিরিয়ে দেওয়া হবে।

এর বাইরে অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডের নাগরিকদেরও জাপান প্রবেশের জন্য আলোচনা চলছে। থাইল্যান্ড ও ভিয়েতনামের নাগরিকদেরও জাপানে প্রবেশ ও বাইরের অনুমতি দেওয়া হবে তবে এ ক্ষেত্রে অবশ্যই ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে।

তথ্যসূত্র: দ্য মাইনিসি, জাপান টাইমস ও জাপান টুডে

Facebook Comments

বাংলাদেশ সময়: ১১:৫৭ পূর্বাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ২৩ জুলাই ২০২০

জাপানের প্রথম অনলাইন বাংলা পত্রিকা |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

ad