ঘোষণা

টোকিওতে বন্ধ হয়ে যেতে পারে নাইটক্লাব

অনলাইন ডেস্ক | বুধবার, ১৫ জুলাই ২০২০ | পড়া হয়েছে 125 বার

টোকিওতে বন্ধ হয়ে যেতে পারে নাইটক্লাব

ওমর শাহ : করোনা ভাইরাস মহামারির মধ্যে স্বাস্থ্য বিধির যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ না করে ব্যবসায়িক কার্যকলাপ পরিচালনা করার জন্য জাপানের রাজধানী টোকিওর বিনোদনমূলক ক্লাব, নাইটক্লাব, হোস্টক্লাব ও অন্যান্য নাইটলাইফের কার্যক্রমে স্থগিতাদেশের অনুরোধ সরকার বিবেচনা করছে।

বিনোদনমূলক এসব ক্লাবে আসা ব্যক্তিরা মাস্ক পরিধান করেন না। এমন কী নির্দিষ্ট শারীরিক দূরত্ব মানা হয় না এখানে। তাই টোকিওর এসব বিনোদনমূলক ক্লাবের ক্রিয়াকলাপ স্থগিত রাখার অনুরোধ এসেছে বিভিন্ন মহল থেকে সরকারের কাছে এসেছে।

১৫ জুলাই জাপানের অর্থমন্ত্রী ও করোনা প্রতিরোধ কমিটির দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী ইয়াসুতোশি নিশিমুরা টোকিওর একটি অনুষ্ঠানে এসব বিনোদনমূলক ক্লাবের ক্রিয়াকলাপ স্থগিতদেশ আসতে পারে বলে জানিয়েছেন।

ইয়াসুতোশি নিশিমুরা জানান, এই পদক্ষেপটি বিশেষত টোকিওর বড় বাণিজ্যিক ও বিনোদন জেলাগুলোর জন্য নেওয়া হবে। কেননা এই প্রতিষ্ঠানগুলোর সাথে যুক্তরা বেশি সংখ্যক করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন। ক্লাবগুলোতে স্বাস্থ্য বিধি না মানায় মহামারী প্রকট হচ্ছে। ফলে জনসাধারণের মধ্যে উদ্বেগকে বাড়িয়ে তুলেছে।

নিশিমুরা সম্প্রতি এক সংবাদ সম্মেলনে বলেছিলেন যে, সরকারের করোনা ভাইরাস টাস্কফোর্সের উপকমিটি ভবিষ্যতে কীভাবে সংক্রমণের ঢেউ মোকাবেলা করবেন তার সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য বিশেষজ্ঞদের সাথে একটি পরামর্শ সভা করেন।

বিশেষজ্ঞরা ব্যবসায়ীদেরকে করোনা মহামারীর মধ্যে মাস্ক পড়াসহ সব স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলার অনুরোধ করেন। তা না হলে জরিমানার ব্যবস্থা করার পরামর্শ দেন।

টোকিওতে ১৫ জুলাই ১৪৩ জন নতুন করে করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছে। এ নিয়ে টানা দ্বিতীয় দিন দুই শতাধিকের নিচে করোনা সংক্রমণ থেকেছে বলে জাপান টুডের এক খবরে বলা হয়েছে।

এদিকে টোকিওর গভর্নর ইউরিকো কইকি বলেছেন, করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা তিন ডিজিটের চিত্রটি জাপানের ৪৭ প্রদেশের মধ্যে সবচেয়ে বেশি দেখা যাচ্ছে। রাজধানী টোকিওতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৮ হাজার ১৮৯ জনে পৌঁছেছে।

তথ্যসূত্র: জাপান টুডে

Facebook Comments

বাংলাদেশ সময়: ৬:৩৭ পূর্বাহ্ণ | বুধবার, ১৫ জুলাই ২০২০

জাপানের প্রথম অনলাইন বাংলা পত্রিকা |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত