ঘোষণা

প্রতিবন্ধীর উচ্ছ্বলতায় পুরুলিয়ায় অভিনব অক্সিজেন ব্যাঙ্ক

সুকন্যা পাল, | শুক্রবার, ০৫ মার্চ ২০২১ | পড়া হয়েছে 113 বার

প্রতিবন্ধীর উচ্ছ্বলতায় পুরুলিয়ায় অভিনব অক্সিজেন ব্যাঙ্ক

প্রতিবন্ধীর জীবন উপন্যাসে অক্সিজেন ব্যাঙ্কের প্রতিশ্রুতি দাও ফিরে সে অরন্য। এই বিখ্যাত সবুজ উক্তিটি হঠাৎই বৃহস্পতিবার (৪ মার্চ ২০২১) সজীব হয়ে উঠলো পুরুলিয়ার রুক্ষু লাল মাটিতে। একেবারে নিভৃতে। এক ঝাঁক প্রতিবন্ধী কিশোর কিশোরীর উজ্জ্বল উপস্থিতিতে।

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের পুরুলিয়ার কাঁটাডি রেলস্টেশন লাগোয়া বিবেকানন্দ গ্রাম। সেখানেই রয়েছে আচার্য নরেন্দ্রদেব বিদ্যা নিকেতন। একদা ভারতের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী চন্দ্রশেখরের উদ্বোধন করা এই স্কুলের একেবারে গা লাগোয়া একটি এক মনোরম জলাশয় ও বিস্তীর্ণ বারো বিঘা রুক্ষ জমির উপস্থিতি কিন্তু প্রায় ধু ধু প্রান্তর সম। সেখানেই এদিন উদঘাটিত হল এক অভিনব অক্সিজেন ব্যাঙ্ক। সঙ্গে প্রতিবন্ধী খুদে বাচ্চাদের জন্য অনুষ্ঠিত হল নানান আকর্ষণীয় সাংস্কৃতিক কার্যক্রম।

বেলঘরিয়া নেচার ওয়েলফেয়ার সোসাইটি ও ভয়েজ অফ ওয়ার্ল্ড’এর যৌথ উদ্যোগে এই সার্বিক অনুষ্ঠান আয়োজিত হয়। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট সমাজসেবী গার্গী গুপ্ত, খগেন গোস্বামী, আশিস গঙ্গোপাধ্যায়, অভিষেক ঘটক ও চয়ন বন্দ্যোপাধ্যায়।
অক্সিজেন ব্যাঙ্কের উদ্ধোধন করতে গিয়ে উদ্যোক্তারা জানান, পুরুলিয়ার যা প্রাকৃতিক অবস্থান তাতে বসবাসযোগ্য এলাকায় সবুজায়নের অনুপাত তুলনামূলক পর্যায়ে অনেক কম অন্য অঞ্চল থেকে। ফলে আগামী দিনে এই স্থানের স্বাভাবিক অক্সিজেন যোগানের ভারসাম্য সঠিক মাত্রায় রাখার তাগিদে এখানে গভীর বনাঞ্চল তৈরি করার পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে। বনসৃজনের প্রাথমিক কাজ শুরু হয়েছে। পর্যায়ক্রমে পাঁচ হাজার রকমারি ফুল ফলের গাছ লাগানো হবে। যে কেউ এখানে এসে গাছ রোপন করে যেতে পারেন। দূর থেকে আগত উৎসাহী মানুষ এখানে এসে এই অক্সিজেন ব্যাঙ্কে সামিল হতেও পারেন। বিনিময়ে তাঁদের থাকার জন্য প্রাকৃতিক উপাদানে তৈরি অতিথি নিবাস গড়ে তোলার কাজ আরম্ভ হয়েছে। এমনকি এই জেলার নানান হস্তশিল্পের সম্ভার ও ভেজষ খাদ্যও অতিথিদের হাতের মুঠোয় তুলে ধরার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

অন্যদিকে এই অক্সিজেন ব্যাঙ্কের পাশাপাশি এখানে দুস্থ প্রতিবন্ধী বাচ্চাদের জন্য একটি অত্যাধুনিক আবাসিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলার কাজ ইতিমধ্যে শুরু হয়েছে। এমনকি স্থানীয় মহিলাদেরকেও কারিগরি শিক্ষা দানের সংস্থান রাখা হয়েছে। আয়োজন করা হয়েছে প্রতিবন্ধী ছেলে মেয়েদের নিয়ে নানান সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও শিক্ষণশীল কর্মকাণ্ড। এহেন উদ্যোগে উপস্থিত থেকে গার্গী গুপ্ত ও অভিষেক ঘটক বলে, “অক্সিজেন ব্যাঙ্কের সঙ্গে এখানে দুস্থ প্রতিবন্ধীদের জন্য বিশ্বমানের আবাসিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলার কাজ আরম্ভ করেছি যৌথভাবে। তাই এসবের উপলক্ষ্য এটাও একটা অন্যতম উদ্বোধনী উদ্যোগ।”

———-
সুকন্যা পাল, সাংবাদিক, কলকাতা।

Facebook Comments

বাংলাদেশ সময়: ৬:৪৮ পূর্বাহ্ণ | শুক্রবার, ০৫ মার্চ ২০২১

জাপানের প্রথম অনলাইন বাংলা পত্রিকা |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত